সফিউল্লাহ আনসারী‘র একগুচ্ছ কবিতা

সফিউল্লাহ আনসারী

অস্তিত্ব

সমস্ত অস্তিত্ব হাতড়িয়ে
যা পাই ; তাতে তোমার উপস্থিতিতে
ক্ষণজুড়েই চলে বসন্তের উৎসব !
তুমি মানেই বসন্ত
তুমি মানেই উল্লাস
তুমি মানেই ছন্দ
তুমি মানেই ভাবনা
তুমি মানেই শিমুল-পলাশ
তুমি মানেই জীবন
আজীবন আমি তোমাকেই পেতে চাই
আমার সকল সম্ভাবনায়
রক্তের শোনিত ধারায়
স্থিরতায়;পাগলামীতে……!

কে সে জন ?

জীবন একটা গাড়ী
থামেনা কোন ষ্টেশনেই
ফলস্টপ ছাড়া !
সবার জীবনেই সত্যি সেই আওয়ার
খাঁটেনা শক্তি কোনই
মানতে হয় তার পাওয়ার !
কে সে জন ?
খোঁজ রাখকি মানুষ ? জীবনের দাবীদার মন ???

প্লাস মাইনাস

যোগ বিয়োগেই
যারা স্থির
তারাই কেবল মানুষ বলে আমায় !
আর কেউনা !
গনীত শাস্রে
যারা পাঁকা
তাদের কাছে আমি
মানুষ না !আজো না।
কারন:
এই সময়ে
মানুষ=টাকা ! টাকা=মানুষ !!!
ফিরবেকি কোনদিনও হুস্ ?
ওরে মানুষ !

পারুল নামে

উতলা বসন্ত
প্রানবন্ত হাসিতে তোমার !
মন জেগে থাকে
মাতাল হাওয়ার ছন্দে;তোমার !
বিরম্বনা অহংকার হয়
ভয় পালিয়ে হাওয়া হয়
প্রতিক্ষার মূহুর্ত ক্ষীণ হয়
একাকীত্ব পড়শী হয় পারুল নামে !!

আলো

আলো তুমি
ভালোবাসী বলেই।
বলতে পারি দ্বীধাহীন।
তুমি শব্দেই আমার আলো;
থাকা হয় নি:শ্চিন্ত ভালো।
চেতনায় থেকো;থেকো
কারন ছাড়াই
আলো হয়ে
থেকো !

মন

• মন আজ লন্ড-ভন্ড !
মন আজ বৈশাখ !
• মনেই আজ বসছে মেলা
নাগর দোলা;পুতুল নাচের
• ঢোলের বাড়ি !

মেঘ
আমি আজ মেঘ
এসো তুমি ঝড়ের স্পীডে বৈশাখ নামে
বৃষ্টি তুমি
আকাশ ফেরে অঝর ধারা
মনোভুমি;বনোভুমি !
হলো;সবটা জুড়েই তুমি,তুমি !

জীবন
কাটছে জীবন;
হতাসায়।হাহোতাস
সন্দেহের তীর ঘেষা রাত কিনারায়!
ছিলোনা আয়োজন;অপ্রয়োজন ভাবনার
মূল্যের হিসেব-নিকেশ।
কেউ জানেনা ইতিহাস।ফেসবুক স্ট্যাটাসের
নামে প্রকাশিত সবই
হৃদ কথন;রক্তক্ষরন,সত্য-শব্দে বয়ান!
মন্তব্যের লম্বা ওয়াল নেমে গেছে
দ্বীর্ঘায়ীত কথার বানে আমার
সমগ্র সময়ের আলপথ ধরে
স্মৃতির আবেগ তাড়িত ক্ষনের পার্থক্যে !
জীবন চলছে;
না বলা কথার বেদম ভার নিয়ে।
মেঘের পিঠে বৃষ্টিরাই আকঁড়ে থাকে শুধু
লেগে থাকে প্রেম মনের গায়ে।আঠালো
পদার্থ বা চুম্বকীয় আকর্ষন ছাড়াই !
জীবন;
অপরিক্ক কাঠ গুনে খায় তুমুল ।
অপরিপক্ক প্রেম অবিশ্বাসে করে নি:শেষ।
শুধুই দ্বীর্ঘায়ীত কষ্ঠের অশুভ ক্ষন
জড়িয়ে থাকে বেদনার উড়ো স্বপ্ন!
সন্দেহকে পোষে কীহবে আর ?
বিচ্ছিন্ন বাধন লালসায়
জোড়া-তালিতে হয়না পোক্ত !
গনিতের কাছে ধরা খেয়ে
জীবন সাজানো যায়না…!

কষ্ট
কষ্টকে চাঁপা রাখলে শুধুই
দাবানল বাড়ে;গভীরে
অতলে জমতে থাকে ছাই-ভস্ম !
অদেখা মানচিত্র।কেই দেখেনা
টের পাওয়া যায়।
কষ্ট ! আহা ! কষ্টরে…!
পর হইলিনা তুই !

টান
ছেড়ে যেয়োন
যেয়োনা ভূলে
থাকলে দুরে
লাগে টান মূলে !
তোর জন্যই
হৃদয়ের দোয়ার
সারাক্ষন থাকছে;রইলো কপাট খোলা…!

জানিনা
জানিনা তোমায় পাবোকি না!
জানিনা আমি;কোনদিনও তোমার হাতে রেখে এই চাষা হাত
স্থির হবে !
জানিনা ! আমার প্রেমিক হয়ে উঠা
হবেকি না;তোমার আচঁলের মানচিত্রে
আমার কর্ষন কতোটা গভীর দাগ
দেবে । বলতে পারো তোমরা ?
কিংবা জানোকি কিহবে তারপর ?
জানিনা;আমি কিচ্ছু জানিনা !

১.
টিনের চালে ছন্দ তালে
ঝরছে বৃষ্টি জল
স্যাঁত স্যাতেঁ ক্ষন আবেগ ভেঁজা মন
তুই আছিস (আমার)বল ?
২.
নীরবতা আজ মূর্ছনায়
বাধা পড়ে গেছে যতো ছন্দে
দুরত্ব ঘুচাও;থাকো পাশেই
ছাড়ো অভিমান;অযথা দ্বন্দে !

ইচ্ছে
ইচ্ছেরা টেনে নিয়ে চলে
আমাদের স্বপ্নদের
সচল রাখে চোখচোখি
লাইভ চ্যানেল love !
অভিমান জাগিয়ে তোলে
গভীরের সত্য
তোমার প্রতি আমার হৃদংয়ের টান
পারফেক্ট বিষন; কত্তো !

Print Friendly

About the author

‘আজো হলোনা চেনা নিজেকেই’ সফিউল্লাহ আনসারী পেশা:শিক্ষকতা ও সাংবাদিকতা