সত্যের ফাঁদে : মতিন বৈরাগী

মতিন বৈরাগী

22222

কবি মতিন বৈরাগী

সত্যের ফাঁদে : মতিন বৈরাগী

সত্যের ভাষণ শুনতে শুনতে এখন বুঝতেই পারছিনা মিথ্যেটা কেমন
মাঝে মাঝে সন্দেহ তা’ হলে মিথ্যে বলে কী কিছু আছে?
ভালোভাগ্য মাঝরাতে নিকট প্রতিবেশী মঙ্গল জানালায় এসে বলে
তোমাদেরতো এখন বারোমাস তের পার্বন সত্যের জোয়ার বইছে
আকাশের সকল নক্ষত্ররা তখন মিটি মিটি হাসছিলো
আর সক্রেটিস আর তার শিষ্যরা তাজ্জব হয়ে ভাবছিলো যা বলা হয়েছিলো
সে কী ঠিক, না-কী এন্টিনাস আর প্লাটিনাসই টিকে গেলো অবশেষে!

কয়েকটা ইঁদুর সেই দৃশ্য দেখে কেটে দিলো আমার বিছানা
আর আমি নিচে পড়ে যেতে যেতে হাত দিয়ে যাকে ধরলাম
সে সত্যের-কন্যাদের ঝলমলে উড়ন্ত আঁচল
ঈশ্বর কে অশেষ ধন্যবাদ দিতে, সে হেসে বলল:
এতো সত্য তোমরা বলছো কী করে ! আমিতো আশাই করিনি।

আশ্চর্য, সারারাত ফুটপাত ককিয়েছিলো আর লাইট পোষ্টগুলো
বিমলিন আলো নিয়ে অবাক হয়ে দেখছিলো সত্যের ঊৎসব
এখন তুমি আমি ঈশ্বরকে ধন্যবাদ দিতে পারি
সে আমাদের সত্য বলার মওকা দিয়েছে_ এই জন্যে_

আর এসব ভাবনা যখন ছিঁড়ে যায়_ ছিঁড়ে গেলো,
তখন মৌসুমী ঠাণ্ডা আমাকে কাবু করে ফেলেছে

 

Print Friendly