তৃষ্ণার্ত হরিনী

রহমান হেনরী

45নদী শেষ। শিশিরের লোভে
তৃষ্ণাকম্পিতদেহ হরিণীর দল
নেমে এলো তৃণমাঠ খুঁজে

তুমি আজও বহু বহু দূর, দূরের অধিক দূর,
আরও আরও দূরে বিলুপ্ত পাখির বহু পুরাতন
পালকের ঘ্রাণ, অস্পষ্টতা; তবুও

তোমার ছায়া পড়ে আছে
জ্যোৎস্নাফোটা পৃথিবীর সব মাঠে মাঠে

প্রগতিশীল বাঘ, কোনওখানে
নিশ্চয় বেড়ে ওঠে, হৃষ্টপুষ্ট হয়

একদিন
হরিণী, জ্যোৎস্না ও ছায়া
নিতে চায় প্রবল থাবায়, আধিপত্যবাদী;

নদীর কিনারে বসে আজও যদি
শোকবিহ্বলতায় কান্না হয় আমাদের বিপ্লবের নাম

শিশির ফলানো মাঠে
রক্তকাণ্ড কে সামলাবে? বলো তো, কমরেড!

Print Friendly

About the author

নাম: রহমান হেনরী জন্ম: ১৪ জানুয়ারি ১৯৭০, নাটোরে। পেশা: চাকুরি লেখালিখি: কবিতাকর্মী, অনুবাদকর্মী সম্পাদনা: পোয়েট ট্রি (কবিতা কাগজ) গ্রন্থ সংখ্যা: ১৮ (সম্পাদিত ও অনুবাদগ্রন্থসহ)